ডোমার স্বাস্থ্য বিভাগে করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে আইসোলেশন ইউনিট চালু।


আনিছুর রহমান মানিক, ডোমার (নীলফামারী) প্রতিনিধি>>
নীলফামারীর ডোমার স্বাস্থ্য বিভাগে করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে আইসোলেশন ইউনিট চালুকরা হয়েছে।
বর্তমানে ভাইরাসের কোন রোগী না থাকলেও করোনা প্রতিরোধে যাবতীয় প্রস্তুতি গ্রহন করেছে ডোমার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স। মরনব্যাধি করোনা ভাইরাসে সারাবিশ্ব  স্থবির হয়ে পরেছে। বাংলাদেশেও বেশকিছু বিদেশ ফেরত মানুষের শরীরে করোনা ভাইরাসে ধরা পরেছে। এই রোগে আক্রান্ত হয়ে দেশে এক জনের মৃত্যুর খবরে আতঙ্কিত হয়ে পরেছে সকলেই। ইতিমধ্যেই দেশে সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষনা করা হয়েছে। সরকারের পক্ষ থেকে সচেতনতা মুলক ব্যাপক প্রচার ও প্রচারনা চালানো হচ্ছে। এই রোগ থেকে রক্ষা পেতে আল্লাহর দরবারে সকলেই দোয়া কামনা করছে।  গত ১০ই মার্চ থেকে ২১ই মার্চ পর্যন্ত বিদেশ থেকে আসা একই পরিবারের ৩জন সহ ২৪ জন হোম কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে। তারা অস্টেলিয়া, মালেশিয়া, সিঙ্গাপুর, ইরাক, দুবাই ও ভারত থেকে এসেছে। করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে উপজেলা স্বাস্থ্য
বিভাগ ব্যাপক প্রস্তুতি গ্রহন করেছে। ইতিমধ্যে হাসপাতালে পুরুষ-মহিলার জন্য কোয়ারেন্টাইন রুম বরাদ্দের পাশাপাশি আইসোলেশন রুমও বরাদ্দ রাখা হয়েছে। উপজেলার স্বাকমপ্লেক্সে করোনা রোগীদের জন্য আলাদা আলাদা রুমগুলো ইতিমধ্যেই প্রস্তুত করে তোলা হয়েছে। বর্তমানে প্রাথমিকভাবে ৫টি বেড বরাদ্দ রাখা হলেও পরি¯ি'তি বুঝে বেড সংখ্যা বাড়ানো হবে বলে জানিয়েছেন উপজেলা স্বাস্থ্য ও প: প: কর্মকর্তা ডা: মোহাম্মদ ইব্রাহীম। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে কোন করোনা রোগী এখন পর্যন্ত আসেনি বা কারো শরীরে করোনা ভাইরাসের লক্ষন সনাক্ত হয়নি বলে জানিয়েছেন আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডাঃ রায়হান বারী। তিনি জানান, করোনা প্রতিরোধে আমরা যাবতীয় প্রস্তুতি গ্রহন করেছি। কোয়ারান্টাইন ও আইসোলেশন বেড প্রস্তুত রাখা রয়েছে যদিও এখন পর্যন্ত উপজেলায় কোন করোনা রোগী সনাক্ত হয়নি। তিনি আরো বলেন করোনা প্রতিরোধে আমাদের স্বাস্থ্য বিভাগের সকল কর্মকর্তা- কর্মচারী এলাকায় বিভিন্ন সচেতনামুল কার্যক্রমে অংশ নিয়ে সাধারণ মানুষদের সচেতন করে তুলছেন।
#

পুরোনো সংবাদ

স্বাস্থ্য-চিকিৎসা 2737406927833170690

অনুসরণ করুন

সর্বশেষ সংবাদ

কৃষিকথা

ফেসবুক লাইকপেজ

আপনি যা খুঁজছেন

গুগলে খুঁজুন

আর্কাইভ থেকে খুঁজুন

ক্যাটাগরি অনুযায়ী খুঁজুন

অবলোকন চ্যানেল

item