তিস্তাপাড়ের মানুষের দুঃখে দিন শেষ হতে চলেছে.... প্রতিমন্ত্রী রাঙ্গা

এস. কে. মামুন-

স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় প্রতিমন্ত্রী মশিউর রহমান রাঙ্গা এমপি বলেছেন, তিস্তাপাড়ের মানুষের দুঃখে দিন শেষ হতে চলেছে। তিস্তা নদীর ডান তীর ভাঙ্গন হতে রক্ষার কাজ সম্পন্ন হলে নদী পাড়ের মানুষদের আর প্রতি বছর নদী ভাঙ্গনে সর্বস্ব হারাতে হবে না। বর্ষা এলেই নদী ভাঙ্গন আতংঙ্কে থাকে এখানকার মানুষজন। বর্তমান প্রধানমন্ত্রী রংপুরের পুত্রবধু শেখ হাসিনা রংপুরের দায়িত্ব নিজ কাঁধে নিয়েছেন। এরই অংশ হিসেবে তিস্তা নদীপাড়ের মানুষের দুঃখ-দুদর্শা লাঘবে ভাঙ্গন প্রবণ গঙ্গাচড়ার হাজীপাড়া-পাইকান তিস্তা নদীর ডানতীরস্থ ৩৩.১৫০ কিলোমিটার হতে ৩৩.৫১৫ কিলোমিটার পর্যন্ত ৩২৬.০০ মিটার প্রতিরক্ষামূলক কাজের উদ্বোধন করা হলো। তিনি গতকাল মঙ্গলবার সাউদপাড়া ইসলামিয়া বহুমূখী আলিম মাদ্রাসা মাঠে প্রতিরক্ষা বাঁধের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন। ১২৬ কোটি টাকা ব্যয়ে এ কাজ দ্রুত সম্পন্ন করতে এলাকাবাসীর সহযোগিতা কামনা করেন প্রতিমন্ত্রী। রংপুর পানি উন্নয়ন বোর্ডের বাস্তবায়নে এ বাঁধ নির্মাণে কাজ শুরু হয়েছে। তিনি বলেন, সরকার দরিদ্র মানুষের উন্নয়নে একটি বাড়ি একটি খামার প্রকল্পসহ নানা উন্নয়নমূলক পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে। এ সময় উপস্থিত ছিলেন, মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি সাফিউর রহমান সফি, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আমিনুল ইসলাম, গঙ্গাচড়া জাতীয় পার্টির সভাপতি সামসুল আলমসহ অন্যরা। প্রতিমন্ত্রী ফলক উন্মোচন করে নদী এলাকা ও কাজের অগ্রগতি পরিদর্শন করেন। এর আগে প্রধানমন্ত্রী প্রতিশ্রুত প্রকল্প রংপুরের তারাগঞ্জে পল্লী উন্নয়ন একাডেমি এলাকা পরিদর্শন করেন প্রতিমন্ত্রী রাঙ্গা।

পুরোনো সংবাদ

রংপুর 6543170381402665592

অনুসরণ করুন

সর্বশেষ সংবাদ

কৃষিকথা

ফেসবুক লাইকপেজ

আপনি যা খুঁজছেন

গুগলে খুঁজুন

আর্কাইভ থেকে খুঁজুন

ক্যাটাগরি অনুযায়ী খুঁজুন

অবলোকন চ্যানেল

item