পঞ্চগড়ে গড়ে উঠেছে লাভবান চাষ তেজপাতা বাগান

মো: তোফাজ্জল হোসেন (তোতা), পঞ্চগড় প্রতিনিধিঃ পঞ্চগড়ে গড়ে উঠেছে তেজপাতা বাগান। এতে লাভবান হচ্ছে তেজপাতা বাগান মালিকরা।জেলার বোদা উপজেলার বিভিন্ন অঞ্চলে দেখা গেছে একরের পর এক তেজপাতার বাগান। তাছাড়া পঞ্চগড় সদর উপজেলাতেও গড়ে উঠেছে তেজপাতার বাগান। বোদা উপজেলার তেজপাতা চাষী মো: খোকন মিয়ার সাথে তেজপাতা বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমাদের বোদা উপজেলায় প্রায় কৃষকরায় অন্যান্য আবাদের পাশাপাশি তেজপাতা বাগান করে আমরা লাভবান হয়েছি। তিনি আরও বলেন বর্তমানে প্রতি কেজি তেজপাতা ৩০-৩৫ টাকা দরে পাইকাররা কিনছেন। বর্ষাকালে প্রতি কেজি পাতা বিক্রি হয় ৭০-৭৫ টাকা কেজি দরে। আমাদের এলাকায় দিনদিন তেজপাতার চাষ বেড়েই চলেছে। কেননা এ চাষে তেমন কোনো বাড়তি খরচ হয়না। বাগান চাষীরা জানান, এই তেজপাতা শুধু মসলা হিসেবে নয় বিভিন্ন ঔষধ কোম্পানী লোকজন এসে আমাদের অগ্রিম টাকা দিয়ে তেজপাতা কিনেন। এই তেজপাতা একটি লাভবান ফসল। একবার কোনো রকম বাগান গড়ে তুলতে পারলে আর কোনো সমস্যা হয় না।


তেজপাতা বাগান মালিক মো: খোকন বলেন, একটা বাগান গড়তে সময় লাগে কমপক্ষে ৩ বছর। তারপর থেকে শুরু হয় পাতা বিক্রির ধুম। বছরে ৩ থেকে ৪ বার তেজপাতা বিক্রি করা যায়। এতে বিঘা প্রতি তেজপাতা বিক্রি আসে বছরে ৪ থেকে ৭ লক্ষ টাকা। বাগানের গাছ যতো বড় হয় ততই পাতার পরিমাণ বাড়ে। একটি বাগান ২০-২৫ বছর পর্যন্ত থাকে।  এর তেমন কোনো রোগ বালাই নেই। আমরা বোদা উপজেলার অনেকেই তেজপাতার বাগান করে লাভবান হয়েছি। আমরা অনেকেই এই তেজপাতা বিক্রি করে ছেলে মেয়েদের লেখাপড়া, বিয়ে, সংসারের খরচ সহ ভীষণ ভাবে উপকৃত হচ্ছি।

পুরোনো সংবাদ

কৃষিকথা 7066868669809700653

অনুসরণ করুন

সর্বশেষ সংবাদ

কৃষিকথা

ফেসবুক লাইকপেজ

আপনি যা খুঁজছেন

গুগলে খুঁজুন

আর্কাইভ থেকে খুঁজুন

ক্যাটাগরি অনুযায়ী খুঁজুন

অবলোকন চ্যানেল

item