পীরগাছায় তিস্তার পানি বৃদ্ধি, ৩ হাজার পরিবার পানিবন্দি

ফজলুর রহমান ,পীরগাছা(রংপুর)প্রতিনিধি:

রংপুরের পীরগাছায় হঠাৎ করে উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢলে তিস্তা নদীর পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় উপজেলা ছাওলা ইউনিয়নের চরাাঞ্চলের ১০ টি গ্রামের প্রায় তিন হাজার পরিবার পানিবন্দি হয়ে পড়েছে।
গতকাল সোমবার সরেজমিনে বন্যা কবলিত এলাকায় গিয়ে দেখা যায়, উপজেলার ছাওলা ইউনিয়নের গাবুড়া, শিবদেবচর, আমিনপাড়া, চরছাওলা কামারের হাট, রামসিং, জুয়ানের চরসহ প্রায় ১০টি গ্রাম বন্যার পানিতে তলিয়ে গেছে। গ্রামগুলোতে অবস্থিত প্রায় ৫টি প্রাথমিক বিদ্যালয় পানির নিচে তলিয়ে যাওয়ায় শিক্ষর্থীদের লেখাপড়ায় বিঘœ ঘটছে। তিস্তা প্রতিরক্ষা বাঁধের পীরগাছা পয়েন্টে পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় বাঁধের তিন কিলোমিটার অংশ হুমকির মূখে পড়েছে। এদিকে বেক্সিমকো তিস্তা সোলার পাওয়ার প্লান্টে যাতায়াতের জন্য অপরিকল্পিত ভাবে তিন নং বেরী বাঁধ সাহেব বাজার থেকে সুন্দরগঞ্জ সীমান্তবতী নাটশালা পর্যন্ত নতুন রাস্তা নির্মাণ করা হয়। ফলে ওই এলাকার পানি নিষ্কাশনের কোন ব্যবস্থা না থাকায় পানিবন্দি হয়ে পড়েছে চরাঞ্চলবাসী। বর্তমানে বন্যা কবলিত এলাকাগুলোতে বিশুদ্ধ পানির তীব্র সংকট দেখা দিয়েছে। অনেকে খাদ্য সামগ্রী ও বিশুদ্ধ পানি নিজ উদ্যোগে সংগ্রহ করলেও তা প্রয়োজনের তুলনায় অপ্রতুল বলে বন্যা দূর্গত এলাকার লোকজন জানায়। পানি নিষ্কাশনের ব্যবস্থা না থাকায় ও পানি বৃদ্ধি অব্যাহত থাকলে আরো নতুন নতুন এলাকা প্লাবিত হওয়ার আশংকা করছে এলাকাবাসী।
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ফাউজুল কবির জানান, বন্যার বিষয়ে খোজ নিয়ে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

পুরোনো সংবাদ

রংপুর 8304424762902476066

অনুসরণ করুন

সর্বশেষ সংবাদ

কৃষিকথা

ফেসবুক লাইকপেজ

আপনি যা খুঁজছেন

গুগলে খুঁজুন

আর্কাইভ থেকে খুঁজুন

ক্যাটাগরি অনুযায়ী খুঁজুন

অবলোকন চ্যানেল

item