সৈয়দপুরে গৃহবধূর গলায় ফাঁস দিয়ে আত্নহত্যা


নির্ণয়,নীলফামারী॥
নীলফামারীর সৈয়দপুরে গলায় ফাঁস দিয়ে এক গৃহবধু আত্মহত্যা করেছে।  শুক্রবার (১৩ আগষ্ট/২০২১) সৈয়দপুর উপজেলার বোতলাগাড়ী ইউনিয়নের শ্বাষকান্দর কুঠিপাড়ায় ভোর রাতে এ ঘটনা ঘটে। নিহত ব্যাক্তি আমেনা বেগম (৫৫)।

পুলিশ ও পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, ওই এলাকার বাসিন্দা সৈয়দপুর রেলওয়ে কারখানার অবসরপ্রাপ্ত কর্মচারী জাহের আলীর স্ত্রী আমেনা বেগম। প্রতিদিনের মতো গতকাল বৃহ¯পতিবার(১২ আগষ্ট) দিবাগত রাত আনুমানিক সাড়ে ১১টার দিকে ওই গৃহবধূ রাতের খাবার শেষে বাড়ির নিজ ঘরে ঘুমাতে যান। 

আজ শুক্রবার অনেক বেলা পর্যন্ত ঘুম থেকে না উঠলে পরিবারের লোকজন তাকে ডাকাডাকি করতে থাকেন। কিন্তু দীর্ঘ সময় পর্যন্ত তার  কোন রকম সাড়া শব্দ না পেয়ে পরিবারের সদস্যদের সন্দেহ হয়। পরে অনেক চেষ্টার পর ঘরের সিলিংয়ের সঙ্গে গলায় গামছা পেঁচিয়ে ফাঁস লাগানো ঝুলন্ত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করা হয়েছে। 

খবর পেয়ে সৈয়দপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আবুল হাসনাত খানের উপস্থিতিতে উপ-পরিদর্শক (এসআই) আহমেদ উল্লাহ হক প্রধান মরদেহের সুরতহাল প্রতিবেদন তৈরি করেন। পরে মরদেহটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নীলফামারী আধুনিক সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। 

তবে গৃহবধূ আমেনা বেগমের আত্মহত্যার সঠিক কারণ জানা যায়নি। তবে পারিরাবিক কলহের কারণে ওই গৃহবধূ আত্মহত্যা করে থাকতে পারে বলে প্রাথমিকভাবে ধারনা করা হচ্ছে। 

এদিকে, গৃহবধূর আত্মহত্যার খবর পেয়ে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার(সৈয়দপুর সার্কেল) সানোয়ার আলম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করছেন। 

অপরদিকে, গৃহবধূ আমেনা বেগমের আত্মহত্যা করায় তার স্বামী জাহের আলী মারাত্মক অসুস্থ হয়ে পড়েন। তাকে অসুস্থ্য অবস্থায় সৈয়দপুর ১০০ শয্যা বিশিষ্ট হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। 

সৈয়দপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি)  আবুল হাসনাত খান ওই গৃহবধূর আত্মহত্যার বিষয়টি নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন, এ ঘটনায় থানায় একটি অপমৃত্যু (ইউডি) মামলা হয়েছে। লাশের ময়নাতদন্তের জন্য নীলফামারী মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। # 


পুরোনো সংবাদ

নীলফামারী 5942879093082356102

অনুসরণ করুন

Logo

ফেকবুক পেজ

কৃষিকথা

আপনি যা খুঁজছেন

গুগলে খুঁজুন

আর্কাইভ থেকে খুঁজুন

ক্যাটাগরি অনুযায়ী খুঁজুন

অবলোকন চ্যানেল

item