পীরগাছায় সবুজে ভরে উঠেছে ফসলের মাঠ


ফজলুর রহমান, পীরগাছা(রংপুর)প্রতিনিধিঃ
করোনায় সবকিছুর ব্যাঘাত ঘটলেও রংপুরের পীরগাছার উপজেলার কৃষকরা সঠিক সময়ে মাঠে আমন রোপন করায় ফসলের মাঠ সবুজে ভরে উঠেছে । ফসলের মাঠ কোথাও ফাঁকা নেই, যতদূর দৃষ্টি পড়ে সবুজ আর সবুজ, নীল আকাশের সাদা মেঘের ঢেলা, যেন সবুজের গাঢ় রঙে একাকার হয়ে পড়েছে। নতুন সাজে সেজেছে বাংলার প্রকৃতি।
উপজেলা কৃষি অফিস সূত্রে জানা যায়, এবছর উপজেলায় ২০ হাজার ৫শ ৬০হেক্টর জমিতে আমন চাষের লক্ষ্যমাত্রা থাকলেও, চাষ হয়েছে ২০ হাজার ৫শ ৮০হেক্টর জমিতে।
উপজেলা উদ্ভিদ সংরক্ষণ কর্মকর্তা আব্দুল লতিফ জানায়, চাষীদের আমন বপন শেষ হয়েছে। এই ধান আগামী কার্তিক মাসের দিকে কাটাই-মাড়াই শুরু হবে। আবহাওয়া অনূকুলে থাকলে আশা করি ফলন ভাল হবে।
কয়েকজন কৃষক জানায়, অন্যান্য জাতের ধানের ন্যায় সুগন্ধি জাতের ধানে সমান ফলন হলেও, বাজারে চাহিদা ও দাম বেশি থাকায় তারা কালোজিরা, নাইজার শাইল জাতের ধান বেশি চাষ করে থাকে। প্রাকৃতিক দুর্যোগের শিকার না হলে আবারও হেমন্তে নতুন ধানে ভরে উঠবে কৃষকের গোলা। এই প্রত্যাশা আমন চাষিদের। 
পীরগাছা উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা শামীমুর রহমান জানান, এবারে উপজেলায় ২০ হাজার ৫শ ৮০হেক্টর জমিতে আমন ধান চাষ হয়েছে। উপজেলার কৃষকরা স্থানীয় ধানের জাতসহ হাইব্রীড হিরা-২,হিরা-৫, এসিআই-১ ও উপসী জাতের ধানও চাষ হয়েছে। ফলন যাতে ভালো হয়, এই জন্য মাঠ পর্যায়ে উপ-সহকারি কর্মকর্তারা নিয়মিত কৃষকদের পরামর্শ দিয়ে আসছেন 

পুরোনো সংবাদ

রংপুর 2559899093078028351

অনুসরণ করুন

সর্বশেষ সংবাদ

কৃষিকথা

ফেসবুক লাইকপেজ

আপনি যা খুঁজছেন

গুগলে খুঁজুন

আর্কাইভ থেকে খুঁজুন

ক্যাটাগরি অনুযায়ী খুঁজুন

অবলোকন চ্যানেল

item