সৈয়দপুরের কামারপুকুর বালাডাঙ্গা থেকে এক গৃহবধূর লাশ উদ্ধার

সৈয়দপুর (নীলফামারী) প্রতিনিধি:

 নীলফামারীর সৈয়দপুরে আকলিমা (২৮) নামের তিন সন্তানের জননী এক গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। আজ শনিবার উপজেলার কামারপুকুর ইউনিয়নের স্বাদু পানি মৎস্য গবেষণা উপকেন্দ্রের পিছনের বালাডাঙ্গার মাঠ থেকে ওই লাশ উদ্ধার করা হয়।

 পুলিশ ও পরিবার সূত্রে জানা গেছে, সৈয়দপুর উপজেলার ১ নম্বর কামারপুকুর ইউনিয়নের কিসামত কামারপুকুর সরকারপাড়ার মৃত. আবেদ আলীর মেয়ে আকলিমা (২৮)। গত ২০১৪ সালের দিনাজপুরের পাবর্তীপুর উপজেলার হাবড়া রসুলপুর এলাকার মো. শরিফুল ইসলামের সঙ্গে বিয়ে হয় তাঁর। ওই দম্পতির তিন ছেলেমেয়ে রয়েছে। গতকাল শনিবার গৃহবধূর আকলিমার লাশ তাঁর বাবার বাড়ি সৈয়দপুর উপজেলার কামারপুকুর ইউনিয়নের কিসামত কামারপুকুর সরকারপাড়ার অদূরে স্বাদু পানি মৎস্য গবেষণা উপকেন্দ্রের পিছনের বালাডাঙ্গায় ১১ হাজার ভোল্টের একটি বৈদ্যূতিক খুঁটির নিচে পড়ে ছিল। সকালে এলাকার লোকজন মাঠে কাজ করতে গিয়ে এক নারীর লাশ পড়ে থাকতে দেখেন। পরে খবর পেয়ে সৈয়দপুর থানা পুলিশ সেখানে যান। এরপর  ডিবি পুলিশেরও একটি দল ঘটনাস্থলে আসেন। এরপর সৈয়দপুর থানার  পরিদর্শক (তদন্ত) মো. আতাউর রহমানের নেতৃত্বে থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মো. সাহিদুর রহমান লাশের সুরতহাল রিপোর্ট তৈরি করেন। এ সময় লাশের কোমরে কাপড়ের মধ্যে গুছিয়ে রাখা একটি চিরকুট উদ্ধার করা হয়েছে। যাতে লেখা ছিল “আমার মৃতুর‌্য জন্য কেউ দায়ী নয়”। এরপর লাশটি উদ্ধার করে  ময়নাতদন্তের জন্য নীলফামারী আধুনিক সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। গৃহবধূ আকলিমাকে শ্বাষরোধ করে হত্যা করা লাশ ফেলে রেখে যাওয়া হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করছেন পুলিশ। সৈয়দপুর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার অশোক কুমার পাল ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। এ ঘটনায় স্থানীয় থানায় একটি অপমৃত্যূ মামলা দায়ের করা হয়েছে।

সৈয়দপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. আবুল হাসনাত খান কামারপুকুর বালাডাঙ্গা এলাকার মাঠ থেকে এক নারীর লাশ উদ্ধারের বিষয়টি নিশ্চিত করেন। 


পুরোনো সংবাদ

নীলফামারী 9074039248541622816

অনুসরণ করুন

সর্বশেষ সংবাদ

কৃষিকথা

ফেসবুক লাইকপেজ

আপনি যা খুঁজছেন

গুগলে খুঁজুন

আর্কাইভ থেকে খুঁজুন

ক্যাটাগরি অনুযায়ী খুঁজুন

অবলোকন চ্যানেল

item