সা.সম্পাদকের বহিষ্কার চেয়ে ডোমারে আ.লীগ সভাপতির সংবাদ সম্মেলন

আবু ফাত্তাহ্ কামাল (পাখি),স্টাফ রিপোর্টার-
সন্ত্রাস, ভূমি দস্যুতা, অপহরণ ও নৌকা বিরোধী কার্যকলাপের অভিযোগ তুলে ডোমার উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক তোফায়েল আহমেদকে বহিস্কারের দাবীতে সংবাদ সম্মেলন করেছেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. খায়রুল আলম বাবুল ।
রোববার দুপুরে ডোমার নাট্য সমিতি মিলনায়তনে ডোমার উপজেলা আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীর ব্যনারে আয়োজিত ওই সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ দাবি করেন।


এর আগে গত ২৭ আগষ্ট নৌকা বিরোধী কার্যকলাপের অভিযোগ তুলে সভাপতি খায়রুল আলমের বহিস্কার দাবীতে সংবাদ সম্মেলন করেছিলেন সাধারণ সম্পাদক মো. তোফায়েল আহমেদ। 
উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. খায়রুল আলম বাবুল তার লিখিত বক্তব্যে বলেন, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক তোফায়েল আহমেদ ও তার অনুসারীরা দলীয় প্রভাব খাটিয়ে এলাকায় মাদক ব্যবসা, অপহরণ, ভূমি দস্যূতা ও চাকুরী দেয়ার নামে মানুষের কাছে টাকা আদায়সহ নানা রকম বিতর্কিত ও সন্ত্রাসী কার্যকলাপ চালাচ্ছেন। বর্তমানে তার নেতৃত্বে শান্তির জনপদ ডোমার এখন সন্ত্রাসের জনপদে পরিনত হয়েছে। তার এমন কার্যকলাপে সাধারণ মানুষ ও আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা একে অপরের প্রতিপক্ষ হয়ে দাড়িয়েছেন।
ওই সংবাদ সম্মেলনে দাবী করা হয়, তোফায়েল আহমেদ ১৯৮৪ সালে ফ্রিডম পার্টির নেতা ছিলেন, ১৯৮৬ সালে তিনি জাসদে যোগ দেন। এর পর ছাত্রদল নেতা চয়ন হত্যা মামলার আসামী থেকে নিজেকে বাঁচাতে ১৯৯৭ সালে তিনি আওয়ামী লীগে যোগ দেন।
 তোফায়েল আহমেদকে দলে অনুপ্রবেশকারী উল্লেখ করে খায়রুল আলম আরও বলেন, দলে যোগ দিয়ে তিনি আওয়ামী লীগের সাবেক সংরক্ষিত সাংসদ ফরিদা রউফ আশা ও সাবেক ভূমি প্রতিমন্ত্রী রাশেদ মোশারফের জনসভায় হামলা, বঙ্গবন্ধুর ছবি ভাঙ্গচুরসহ বহু সংগঠন বিরোধী কার্যকলাপে জড়িয়ে পড়েন।
খায়রুল আলম অভিযোগ করে বলেন, আগামী ১৪ সেপ্টেম্বর উপজেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলন বানচালের লক্ষে তোফায়েল আহমেদ ষড়যন্ত্র করছেন। যে কোনো কিছুর বিনিময়ে আমরা সম্মেলন করবো।

আগামী ১৪ সেপ্টেম্বর অনুষ্ঠিতব্য ডোমার উপজেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলনের আগে তোফায়েল আহমেদকে দল থেকে বহিষ্কার করে এলাকায় সুষ্ঠ ধারার রাজনীতি ফিরিয়ে আনার জন্য দলীয় সভাপতির হস্তক্ষেপ কামনা করেন খায়রুল আলম।
সংবাদ সম্মেলণে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা আ.লীগের সহ-সভাপতি মঞ্জুরুল হক চৌধুরী, এনায়েত হোসেন, শরিফুল ইসলাম, উপজেলা আওয়ামীলীগের সদস্য রেজাউল  হক, উপজেলা যুবলীগের আহবায়ক আমিনুর ইসলাম, উপজেলা কৃষক লীগের সাধারণ সম্পাদক সাদিকুল ইসলাম, উপজেলা মহিলা আ.লীগের আহবায়ক উম্মে কুলসুম ও যুব মহিলা লীগের সভাপতি আসমা সিদ্দিকাসহ বিভিন্ন অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা।
উল্লেখ্য, এর আগে সংসদ, উপজেলা ও পৌর নির্বাচনে নৌকা বিরোধী কার্যকলাপের অভিযোগ তুলে সভাপতি খায়রুল আলমের বহিষ্কার দাবি করে গত ২৭ আগষ্ট দুপুরে ডোমার ডাকবাংলো চত্তরে সংবাদ সম্মেলণ করেন সাধারণ সম্পাদক তোফায়েল আহমেদ।
এ বিষয়ে কথা বললে, অভিযোগের সত্যতা অস্বীকার করে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক তোফায়েল আহমেদ বলেন, ‘আমার বক্তব্য আমি গত ২৭ আগষ্ট সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে জানিয়ে দিয়েছি। উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি নিজের আত্মরক্ষার জন্য এ সমস্ত বিভ্রান্তিমুলক তথ্য প্রচার করছেন। আমি কি? কেমন? এটা জেনে কেন্দ্র আমাকে দুইবার নৌকা প্রতিক দিয়েছেন। সে একবারও নৌকা পায় নাই। আমি ৩০ বছর আগে বোড়াগাড়ি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ছিলাম। তার করা অভিযোগ সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন’।#
ছবি ঃ ডোমার ঃ ডোমার নাট্য সমিতি মিলনায়তনে নেতাকর্মী আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য রাখছেন ডোমার উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি খায়রুল আলম বাবুল ।

পুরোনো সংবাদ

নীলফামারী 4527187543016992508

অনুসরণ করুন

সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত

শিল্প-সাহিত্য

ফেসবুক লাইকপেজ

তারিখ অনুযায়ী খুঁজুন

অবলোকন চ্যানেল

item