তিস্তা জোনের কাবাডিতে নারী ও পুরুষ দলের দুইটিতে চ্যাম্পিয়ন নীলফামারী জেলা


নির্ণয়,নীলফামারী॥
রাত তখন ১১টা। নীলফামারী বড় মাঠ লাইটের আলোয় দিনের আলোর মতো ঝলমল করছে। সেখানে  চলছিল সন্ধ্যা সাড়ে ৭টা থেকে “বঙ্গবন্ধু ৯ম বাংলাদেশ গেমস কাবাডি”র তিস্তা জোনের ফাইনাল খেলার ফাইনাল প্রতিযোগীতা। মঙ্গলবার(৯ মার্চ) রাতের এমন দৃশ্য কেউ না দেখলে বিশ্বাস করতে চাইবেন না, কাবাডি খেলা উপভোগ করতে এতো দর্শন হতে পারে? প্রধান অতিথি,বিশেষ অতিথিরাও যেন মহাদর্শক। রাত ভারী হচ্ছে,কারোই নেই কোন তাড়া। খেলা শেষ হয় রাত ১২টায়। খেলা শেষে পুরস্কার বিতরনের পর চলে মনোরম আঁতশবাজি। 

“বঙ্গবন্ধু ৯ম বাংলাদেশ গেমস কাবাডি”র তিস্তা জোনের ফাইনাল খেলায়  নারী ও পুরুষ দল থেকে দুটিতেই চ্যাম্পিয়ন হয়েছে নীলফামারী জেলা দল।

প্রথমে নারী দলের ফাইনালে রংপুর জেলা দলকে ১৮-৩০ পয়েন্ট ব্যবধানে পরাজিত করে চ্যাম্পিয়ন হয় নীলফামারী জেলার কাবাডি দল।এরপর একই মাঠে পুরুষ দলের ফাইনালে দিনাজপুর জেলাকে ২১-২৮ পয়েন্ট ব্যবধান ঘটিয়ে চ্যাম্পিয়ন হয় নীলফামারী জেলা কাবাডি দল। প্রতিযোগীতায় নীলফামারী জেলা পুরুষ দলের বাসুদেব অধিকারী ও নারী দলের রমা রাণী রায় টুর্ণামেন্ট সেরা খেলোয়াড় নির্বাচিত হন।

খেলা শেষে অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি  বাংলাদেশ পুলিশ রংপুর রেঞ্জের ডিআইজি দেবদাস ভট্টাচার্য্য (বিপিএম) পুরুস্কার বিতরন করেন। 

পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মোখলেছুর রহমান (বিপিএম,পিপিএম)’এর সভাপতিত্বে এসময় জেলা প্রশাসক মো. হাফিজুর রহমান চৌধুরী, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) আবুল বাশার মোহাম্মদ আতিকুর রহমান, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পৌর মেয়র দেওয়ান কামাল আহমেদ, সাধারণ সম্পাদক মমতাজুল হক, বাংলাদেশ ফুটবল দলের সাবেক অধিনায়ক ও জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক আরিফ হোসেন মুন, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান শাহিদ মাহমুদ, জলঢাকা উপজেলা চেয়ারম্যান আব্দুল ওয়াহেদ বাহাদুর, সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এলিনা আকতার সহ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক আরিফ হোসেন মুন জানান, বাংলাদেশ কাবাডি ফেডারেশন ব্যবস্থাপনায় দেশের আট বিভাগের আটটি জোনে বঙ্গবন্ধু ৯ম বাংলাদেশ গেমস কাবাডি (নারী-পুরুষ) প্রতিযোগীতা অনুষ্ঠিত হয়। নীলফামারী জেলা পুলিশের সার্বিক সহযোগীতায় নীলফামারী বড় মাঠে তিস্তা জোনের প্রতিযোগীতা আয়োজন করে জেলা ক্রীড়া সংস্থা। গত শুক্রবার (৫ মার্চ) এই খেলার নীলফামারী ভেন্যুতে আনুষ্ঠানিকভাবে উদ্ধোধন করেছিলেন সাবেক সংস্কৃতিমন্ত্রী নীলফামারী ২ আসনের সংসদ সদস্য আসাদুজ্জামান নুর। এই প্রতিযোগীতায় রংপুর বিভাগের পঞ্চগড়, লালমনিরহাট, কুড়িগ্রাম, দিনাজপুর, রংপুর ও স্বাগতিক নীলফামারী জেলার ছয়টি নারী ও ছয়টি পুরুষ দলসহ মোট ১২টি কাবাডি দল অংশ নেয়। 

তিস্তা জোন পর্যায়ে চ্যাম্পিয়ন হওয়া নীলফামারী জেলা নারী ও পুরুষ দল খেলবে জাতীয় পর্যায়ের প্রতিযোগীতায়। ১ এপ্রিল থেকে ঢাকায় শুরু হবে জাতীয় পর্যায়ের এই প্রতিযোগীতা। #


পুরোনো সংবাদ

নীলফামারী 8581423449337177151

অনুসরণ করুন

সর্বশেষ সংবাদ

ফেকবুক পেজ

কৃষিকথা

আপনি যা খুঁজছেন

গুগলে খুঁজুন

আর্কাইভ থেকে খুঁজুন

ক্যাটাগরি অনুযায়ী খুঁজুন

অবলোকন চ্যানেল

item