ঘন কুয়াশার কারণে প্রায় ৬ ঘন্টা বিলম্বে সৈয়দপুর বিমানবন্দরে ফ্লাইট উঠানামা


তোফাজ্জল হোসেন লুতু, সৈয়দপুর (নীলফামারী) প্রতিনিধি:
আজ বুধবার (২০ জানুয়ারি) তীব্র ঘন কুয়াশার কারণে ঢাকা - সৈয়দপুর-ঢাকা রুটে  ফ্লাইট উঠানামায় মারাত্মক বিঘ্নের সৃষ্টি হয়। বেসরকারি বিমান সংস্থা ইউএস বাংলার প্রথম ফ্লাইটটি প্রায় ৬ ঘন্টার বিলম্বে বিকেল পৌণে পাঁচটায় সৈয়দপুর বিমানবন্দরে অবতরণ করে। যদিও এ ফ্লাইটটি ঢাকার শাহ্জালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে সকাল ১০ টায় ছেড়ে বেলা পৌণে ১১ টায় সৈয়দপুর বিমানবন্দরে অবতরণের সিডিউল ছিল।

  বিমানবন্দর সূত্রে জানা গেছে, ঢাকা- সৈয়দপুর-ঢাকা রুটে বেসরকারী বিমান সংস্থা ইউএসবাংলা ও নভোএয়ারের প্রতিদিন পাঁচটি করে এবং সপ্তাহের বৃহস্পতিবার, শুক্রবার ও শনিবার সরকারি সংস্থা বাংলাদেশ বিমানের একটিসহ সর্বমোট ১১টি ফ্লাইট প্রতিদিন চলাচল করে। অথচ গতকাল বুধবার কুয়াশাচ্ছন্ন আকাশে ভিজিবিলিটি (দৃষ্টিসীমা) কম থাকায় ঢাকার  শাহ্জালাল আন্তর্জাতিক বিমানববন্দর থেকে ছেড়ে ইউএসবাংলার প্রথম ফ্লাইটটি বিকেল পৌণে পাঁচটায় সৈয়দপুর বিমানবন্দরে অবতরণ করে। পরে বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে  সেটি আবারও ঢাকা উদ্দেশ্যে সৈয়দপুর বিমানবন্দর ছেড়ে যায়। তবে ওই ফ্লাইটটি ঢাকা থেকে কতজন যাত্রী নিয়ে সৈয়দপুরে আসে এবং কতজন যাত্রী নিয়ে ঢাকার উদ্দেশ্যে ছেড়ে যায় তা জানা সম্ভব হয়নি। এ রিপোর্ট পাঠানো পর্যন্ত (বিকেল সাড়ে ৫টা)  ইউএসবাংলার ওই একটি মাত্র ফ্লাইটই সৈয়দপুর বিমানবন্দরে অবতরণ করে। 

 সৈয়দপুর বিমানবন্দর সংশ্লিষ্ট একটি সূত্র জানায়, স্বাভাবিকভাবে ফ্লাইট চলাচলের জন্য  ভিজিবিলিটি (দৃষ্টিসীমা) প্রয়োজন হয় কমপক্ষে ১৮০০ থেকে ২০০০ মিটার। কিন্তু আজ বুধবার ভিজিবিলিটি অতিমাত্রা কম থাকায় বিমান চলাচলে বিঘ্নের সৃষ্টি হয়। তবে বিকেল তিনটায় এখানে ভিজিবিলিটি বেড়ে দাঁড়ায় ১৭০০ মিটারে।

সৈয়দপুর বিমানবন্দরের ব্যবস্থাপক সুপ্লব কুমার ঘোষ  দিনভর আকাশে ঘন কুয়াশার কারণে  ঢাকা- সৈয়দপুর- ঢাকা রুটে নিয়মিত ফ্লাইট চলাচলে বিঘ্নের সত্যতা স্বীকার করেন। 

এদিকে,গতকাল বুধবার সৈয়দপুরসহ গোটা নীলফামারী জেলায় সারাদিন সূর্যের দেখা মেলেনি। কনকনে ঠান্ডা অনুভূত হয়েছে সারাদিন। ফলে শিল্প ও বাণিজ্য প্রধান সৈয়দপুর শহরে ও উপজেলার বিভিন্ন হাটবাজারগুলোতে মানুষের উপস্থিতি অপেক্ষাকৃত কম ছিল। সৈয়দপুর বিমানবন্দর সড়কের নার্সারী এলাকার পিঁয়াজু, জিলাপি ,সমুচ্ছা ও তেলপিঠা বিক্রির দোকান মালিক জানান, আজ তীব্র শীতের কারণে অন্যান্য দিনের তুলেনায় তাঁর দোকানে বেচাবিক্রি তুলনামূলক অনেক কম ।

সৈয়দপুর বিমানবন্দরের আবহাওয়া কার্যালয়ের আবহাওয়া সহকারি মো. লোকমান হাকিম জানান, গতকাল বুধবার বিকেল তিনটায় এখানে  ভিজিবিলিটি ছিল ১৭০০ মিটার। এছাড়াও সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ১২ দশমিক ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস এবং সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ২২ ডিগ্রি সেলসিয়াস। 


পুরোনো সংবাদ

নীলফামারী 7364501822675085628

অনুসরণ করুন

সর্বশেষ সংবাদ

ফেকবুক পেজ

কৃষিকথা

আপনি যা খুঁজছেন

গুগলে খুঁজুন

আর্কাইভ থেকে খুঁজুন

ক্যাটাগরি অনুযায়ী খুঁজুন

অবলোকন চ্যানেল

item