রংপুরে প্রতিবন্ধীকে রিকশাচালককে পিটিয়ে হত্যা পুলিশের বিরুদ্ধে মামলা, মহাসড়কে বিক্ষোভ


রংপুর প্রতিনিধিঃ

রংপুর নগরীতে প্রতিবন্ধী রিকশাচালক নাজমুল ইসলামকে পিটিয়ে হত্যার ঘটনায় অভিযুক্ত পুলিশ সদস্যের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে। বুধবার(২৩ডিসেম্বর)রাতে নিহতের স্ত্রী শ্যামলী বেগম বাদী হয়ে পুলিশ কনস্টেবল হাসান আলী ও স্ত্রী সাথী বেগমকে আসামি করে এ মামলা দায়ের করেন।

এদিকে, বৃহস্পতিবার (২৪ ডিসেম্বর) দুপুর দেড়টা থেকে ৩টা পর্যন্ত নগরীর পার্কের মোড়ে বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয় সংলগ্ন সড়কে বিক্ষোভ মিছিল করেছে স্থানীয় এলাকাবাসী ও অটোরিকশা শ্রমিকেরা। এসময় বিক্ষুব্ধ জনতা পুলিশ কনস্টেবল হাসান আলীর শাস্তির দাবিতে ঢাকা-রংপুর-কুড়িগ্রাম মহাসড়কে অবস্থান নিলে যানচলাচল বন্ধ হয়ে যায়।

নিহতের স্ত্রী শ্যামলী বেগম ও স্থানীয়দের অভিযোগ, রংপুর পুলিশ সেন্টারে (পিটিআই) কর্মরত কনস্টেবল হাসান আলী ও স্ত্রী সাথী বেগম পিটিয়ে রিকশাচালক নাজমুলকে বেধড়ক পিটিয়ে হত্যা করেছে । অভিযুক্তদের আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি করেন তিনি।

এর আগে বৃহস্পতিবার দুপুরে নগরীর শাপলা চত্বরে অটো রিকশা চালক শ্রমিক লীগ ও দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় বাংলাদেশ ছাত্র ও যুব অধিকার পরিষদের নেতাকর্মীরা ওই ঘটনায় জড়িতদের শাস্তির দাবিতে মানববন্ধন করে।

জানা গেছে, বুধবার সন্ধ্যায় কনস্টেবল হাসান আলীর আশরতপুর কোর্টপাড়া এলাকার ভাড়া বাসা থেকে ওই রিকশাচালকের ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। পরে কনস্টেবল হাসান ও স্ত্রীর বিরুদ্ধে অভিযোগ এনে বিক্ষোভ ও সড়ক অবরোধ করে এলাকাবাসী। ঘটনার দিনই ওই পুলিশ সদস্য ও তার স্ত্রীকে আটক করা হয়।

এব্যাপারে তাজহাট থানার ওসি আখতারুজ্জামান প্রধান বলেন, এ ঘটনায় কনস্টেবল হাসান ও স্ত্রী সাথীকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা আশরাফুল ইসলাম জানান, আজ বেলা সোয়া দুইটায় আসামিদের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক ফজলে ইলাহী খান এর আদালতে নেয়া হলে বিচারক তাদের জামিন না মঞ্জুর করে কারাগারে পাঠায়


পুরোনো সংবাদ

রংপুর 7740388444044384169

অনুসরণ করুন

সর্বশেষ সংবাদ

ফেকবুক পেজ

কৃষিকথা

আপনি যা খুঁজছেন

গুগলে খুঁজুন

আর্কাইভ থেকে খুঁজুন

ক্যাটাগরি অনুযায়ী খুঁজুন

অবলোকন চ্যানেল

item