রাতের আধাঁরে ছিন্নমুল মানুষকে খাবার বিতরন করলেন নীলফামারী সদর উপজেলা যুবলীগ সভাপতি


নীলফামারী প্রতিনিধি ১৫ এপ্রিল প্রাণঘাতি করোনা ভাইরাসের সংক্রমনে লকডাউন নীলফামারী শহরে রাতের আধাঁরে ছিন্নমুল মানুষকে রান্নাকরা খিচুড়ির প্যাকেট বিতরন করেছে জেলা সদর উপজেলা যুবলীগের সভাপতি প্রনবানন্দ রায় রাখাল। 
গতকাল মঙ্গলবার (১৪ এপ্রিল/২০২০) রাতে ছোট ভাইকে সাথে নিয়ে জেলা শহরের গাছবাড়ী, পুরাতন রেলওয়ে স্টেশন, বনবিভাগ, র্টামিনাল, কলেজ স্টেশন ও হাড়োয়া মিশন ঘুরে রান্না করা খিচুড়ির প্যাকেট বিতরন করেন ওইসব ছিন্নমুল মানুষের মাঝে। স্কুল শিক্ষক স্ত্রী চন্দনা রানী রায়ের সহযোগিতায় এই ক্ষুদ্র প্রয়াশকে গতিশীল করতে আরো উদ্যোগী হন রাখাল। আর এই কাজের সাথে ছিলেন ছোট ভাই শ্যামল রায়। চন্দনা রানী জানান, এই দূর্যোগে কর্মহীনদের মাঝে খাদ্য সহায়তা করার সিন্ধান্ত নেই আমরা।  তিনি বলেন, প্রয়াশ আমাদের চলমান থাকবে। করোনা যুদ্ধ যতদিন চলবে আমরাও এই যুদ্ধে পথের মানুষ গুলোকে ততদিন খাদ্য সেবা দিয়ে যাব। প্রতি রাতে ৫০ প্যাকেট খিচুড়ি রান্না করে বিতরন করবো আমরা।  
নীলফামারী পুরাতন রেলওয়ে স্টেশনে (প্লাট ফরমে) পলিথিনে ওপর শুয়ে থাকা মোছা. আছিয়া বেগম জানায়, ট্রেনের মানুষের (যাত্রীদের) কাছে দু এক টাকা চেয়ে নিয়ে তাই দিয়ে এটা ওটা কিনে খাই। এখন ট্রেন বন্ধ। স্টেশনে লোক নাই। খাবারের প্যাকেট পেয়ে তিনি বলেন, সরকারের ত্রাণ আমরা পাইনা। লাইনের ধারে ফুটপাতের মানুষের দিকে কেউ তাকায় না। 
প্রনবানন্দ রায় রাখাল জানান, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আওয়ামী লীগের সকল নেতাকর্মীকে প্রাণঘাতি করোনা ভাইরাসে কর্মহীন ও ছিন্নমুল মানুষের পাশে থাকার নির্দেশ দিয়েছেন। নেত্রীর আদেশ মেনে আমি আমার ব্যক্তিগতভাবে ও পরিবারের সহযোগিতায় এই ক্ষুদ্র প্রয়াশ চালিয়ে যাচ্ছি। যতদিন এই মহামারি চলমান থাকবে আমিও আমার পরিবারকে সাথে নিয়ে করোনা যুদ্ধের মোকাবিলা করে যাব। এটাই আমার ব্রত। 

পুরোনো সংবাদ

নীলফামারী 290345336070168323

অনুসরণ করুন

সর্বশেষ সংবাদ

কৃষিকথা

আপনি যা খুঁজছেন

গুগলে খুঁজুন

আর্কাইভ থেকে খুঁজুন

ক্যাটাগরি অনুযায়ী খুঁজুন

অবলোকন চ্যানেল

item