নীলফামারীতে ট্রাক্টরের চাপা দিয়ে কলেজ ছাত্রকে হত্যা

নীলফামারী প্রতিনিধি \ ব্যবসা সংক্রান্ত টাকা লেনদেনের বিরোধকে কেন্দ্রকে মুছা(২১) নামের এক কলেজ ছাত্রকে প্রতিপক্ষরা ট্রাক্টর চাপা দিয়ে হত্যা করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে। এ নিয়ে আজ মঙ্গলবার(২৮ এপ্রিল/২০২০) বিকালে নীলফামারী সদরের কচুকাটা এলাকায় মানুষজন বিক্ষুদ্ধ হয়ে সড়ক অবরোধ করে।
জানা যায়, নিহত মুছা জেলা সদরের কচুকাটা ইউনিয়নের সর্দারপাড়ার মোফাজ্জল হোসেনের ছেলে ও স্থানীয় কলেজের ছাত্র। তার সঙ্গে একই এলাকার মার্শাল মিয়ার ট্রাকট্রলিতে বালুর যৌথ ব্যবসা রয়েছে। মুছা ওই ব্যবসায় মার্শাল মিয়ার কাছে ২০ হাজার টাকা পায়। কিন্তু সে টাকা দিতে গড়িমসি করছিল। এ অবস্থায় গতকাল সোমবার(২৭ এপ্রিল) বিকালে মুছা পাওনা টাকা উত্তোলনে মার্শাল মিয়ার ছেলে আতিক (১৬) ট্রাক্টর চালিয়ে বাজারে এলে তাকে থামিয়ে টাকা দাবি করে। এ সময় তাদের মধ্যে কথাকাটি হতে থাকে। এক পর্যায় আতিক তার বাবা মার্শালকে মোবাইলে ডেকে আনে। এ সময় মার্শাল তার ছেলেকে হুকুম দেয় ট্রাক্টর চাপা দিয়ে মুছাকে মেরে ফেলতে। এরপর বাবার হুকুম পেয়ে আতিক ট্রাক্টর চালিয়ে মুছাকে চাপা দিয়ে পালিয়ে যায়। এলাকাবাসী মুছাকে উদ্ধার করে প্রথমে সদর আধুনিক হাসপাতালে ও পরে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরন করে। রংপুরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আজ মঙ্গলবার দুপুরে মুছা মারা যায়।
কচুকাটা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুল রউফ চৌধুরী ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, মুছার মৃত্যুর খবরের পর এলাকাবাসী উত্তেজিত হয়ে পড়লে মার্শাল ও তার ছেলে আতিক বাড়ি থেকে পালিয়ে যায়। এরপর এলাকাবাসী সড়ক অবরোধ করে। পরে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে।
নীলফামারী থানার ওসি মমিনুল ইসলাম জানান, ঘটনার আসামীদের আটকের জন্য অভিযান চলছে। #

পুরোনো সংবাদ

নীলফামারী 976537558025320755

অনুসরণ করুন

সর্বশেষ সংবাদ

কৃষিকথা

ফেসবুক লাইকপেজ

আপনি যা খুঁজছেন

গুগলে খুঁজুন

আর্কাইভ থেকে খুঁজুন

ক্যাটাগরি অনুযায়ী খুঁজুন

অবলোকন চ্যানেল

item