সৈয়দপুরে সরকারী জমি দখলের সময় দুই গ্রুপের সংঘর্ষ॥ আহত ৮, আটক ৪


নীলফামারী প্রতিনিধি ১৯ মার্চ॥ সরকারী খাস খতিয়ানে ৪২ শতক জমি দখলের সময় দুই গ্রুপের সংঘর্ষে উভয় পক্ষে ৮জন আহত হয়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে ৪জনকে আটক করে। ঘটনাটি ঘটে বুধবার(১৮ মার্চ/২০২০) রাত ১১টায়। সংঘর্ষে গুরুত্বর একজনকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।
জানা যায়, প্রায় দুই কোটি টাকা মূল্যের এ জমি কয়েকদিন পূর্বে নিজেদের দখলে নেওয়ার চেষ্টা করে শওকত। এসময় আগে থেকে দখলে থাকা আনোয়ার এতে বাধা দিলে উভয় পক্ষের মধ্যে চরম বিরোধের সৃষ্টি হয়। এরই সুত্র ধরে ঘটনার রাতে শওকত এর নেতৃত্বে আন্নু, দানিস, আশরাফ, ওয়াসিম, হৃদয়, সাঈদ হাসান সহ অজ্ঞাতনামা কয়েকজন লাঠি সোটা ও ধারালো দেশীয় অস্ত্রসহ আনোয়ারের বাড়িতে হামলা চালায়। এসময় আনোয়ারের বাড়িতে তার বোন ইসরাত জাহান লাডলির বিয়ে উপলক্ষ্যে গায়ে হলুদের অনুষ্ঠান চলছিল। হঠাৎ করে প্রতিপক্ষের হামলায় হতচকিত হয়ে পড়ে বিয়ে বাড়ির লোকজন। এতে উভয় পরে ৮ জন আহত হয়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে হাজির হয়ে ৪ জনকে আটক করে।
স্থানীয়রা আহতদের সৈয়দপুর ১০০ শয্যা হাসপাতালে ভর্তি করায়। এরা হলো- আনোয়ার, মাহমুদ, খুরশিদ, শওকত, আন্নু, দানিস, আশরাফ, ওয়াসিম। এদের মধ্যে গুরুতর আহত আনোয়ার হোসেনকে (৩৮) উন্নত চিকিৎসার জন্য রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেছে কর্তব্যরত চিকিৎসক।
আটক ৪ জন হলো আনোয়ার হোসেন’র ছেলে হৃদয় (২০) ও সাঈদ হাসান (১৮) এবং ইয়াছিনের ছেলে ইরফান (২৬) ও শফি আলমের ছেলে মাহবুব আলম (৪০)। রাতে মাহবুব আলমের ভাই মাহমুদ আলম বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেন।
মামলার বাদী মাহমুদ আলম জানান, স্থানীয় প্রভাবশালী নুরী সেন্ট হাউজের রিয়াজ উদ্দিনের সহযোগিতায় তার ভাতিজা আশরাফের নেতৃত্বে শওকত গংরা এ হামলা চালিয়েছে। তারা দীর্ঘদিন থেকেই জমিটি দখলে নেওয়ার জন্য নানা পায়তারা করে আসছে। সম্প্রতি গায়ের জোড়েই তারা জায়গাটি টিন দিয়ে ঘিরে নিজেদের দখলে নেওয়ার অপচেষ্টা চালিয়েছে। এ অপকর্মে বাধা দেওয়ায় তারা বার বার হামলার ঘটনা ঘটাচ্ছে। সন্ত্রাসী কায়দায় ধারালো অস্ত্র নিয়ে অতর্কিত হামলা চালিয়ে আমার চাচাতো ভাই আনোয়ার সহ ৪ জনকে জখম করেছে।
নুরী সেন্ট হাউজের রিয়াজ উদ্দিনের সাথে কথা হলে তিনি জানান, মাহমুদের অভিযোগ সত্য নয়। ওই জমি নিয়ে আমার কোন মাথা ব্যাথা নেই। আমার ভাতিজারা শওকতদের ওয়ারিশ হওয়ায় তাদের পক্ষে অবস্থান নিতেই পারে। এতে আমার সংশ্লিষ্টতা নেই।
সৈয়দপুর থানার ওসি আবুল হাসনাত খান জানান, আজ বৃহস্পতিবার(১৯ মার্চ/২০২০) দুপুরে আটককৃতদের আদালতের মাধ্যমে জেলা কারাগারে প্রেরণ করা হয়।
এ ব্যাপারে সৈয়দপুর উপজেলার সহকারী কমিশনার (ভূমি) পরিমল কুমার সরকার জানান, ৪২ শতক জমিই সরকারী সম্পদ। দুটি পক্ষই তাদের সম্পদ বলে দাবি করছে। বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে। তিনি আরও জানান, চাইলেই তো আর জমির মালিক হওয়া যায় না, মালিকানার জন্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্রাদি থাকতে হবে।

পুরোনো সংবাদ

নীলফামারী 8340044945355972882

অনুসরণ করুন

সর্বশেষ সংবাদ

কৃষিকথা

ফেসবুক লাইকপেজ

আপনি যা খুঁজছেন

গুগলে খুঁজুন

আর্কাইভ থেকে খুঁজুন

ক্যাটাগরি অনুযায়ী খুঁজুন

অবলোকন চ্যানেল

item