চীন ফেরত ডোমারের শিক্ষার্থীর শরীরে করোনাভাইরাসের আলামত পাওয়া যায়নি


ইনজামাম-উল-হক নির্ণয়,নীলফামারী প্রতিনিধি ১০ ফেব্রুয়ারি॥ নোবেল করোনাভাইরাসে আক্রান্ত সন্দেহে রংপুর মেডিকেল কলেজ (রমেক) হাসপাতালে ভর্তি চীন ফেরত নীলফামারীর শিক্ষার্থী তাশদীদ হোসেনের (২৫) শরীরে কোন আলামত পাওয়া যায়নি। আজ সোমবার(১০ ফেব্রুয়ারি/২০২০) বিকালে ঢাকাস্থ জাতীয় রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউটের (আইডিসিআর) প্রতিবেদনে এ কথা বলা হয়েছে বলে নিশ্চিত করলেও নীলফামারী সিভিল সার্জেন ডাঃ রনজিত কুমার বর্মন।
নীলফামারীর ডোমার উপজেলার জোড়াবাড়ি ইউনিয়নের মির্জাগঞ্জ গ্রামের আলতাব হোসেনের ছেলে তাশদীদ হোসেন চীনের আনহুই প্রদেশের একটি বিশ্ববিদ্যালয়ে ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগে লেখাপড়া করে। করোনা ভাইরাস ছড়িয়ে পড়ার পর গত ২৯ জানুয়ারি/২০২০ হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর দিয়ে বাংলাদেশে আসেন তিনি। বিমানবন্দরে মেডিকেল পরীায় তার দেহে করোনাভাইরাসের অস্তিত্ব পাওয়া না গেলেও সে নিজ বাড়িতে ফিরে মানষিকভাবে ভুগছিলেন। তার বুকে ব্যথা ও শ্বাসকস্ট দেখা দেয়।
গত শনিবার(৮ ফেব্রুয়ারি/২০২০) সকালে প্রথমে ওই শিক্ষার্থীকে ডোমার উপজেলা হাসপাতালে নেয়া হলে দুপুর ১২টার মধ্যে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে ভর্তি করা হয়। হাসপাতালে ভর্তির পরপরই তাকে আইসোলেশন ওয়ার্ডে নেয়া হয়। রমেক হাসপাতালের মেডিসিন বিভাগের প্রধান ডা. দেবেন্দ্রনাথ সরকারের নেতৃত্বে ১২ সদস্য মেপিকেল টিম গঠন করা হয়। গতকাল রবিবার(৯ ফেব্রুয়ারি/২০২০) সকালে ঢাকা হতে আইডিসিআর-এর দুইজন ল্যাব টেকনিশিয়ানা এসে ওই শিার্থীর রক্ত, ঘাম ও লালা সংগ্রহ করে ঢাকা নিয়ে যায়। আজ সোমবার বিকালে ওই রির্পোট দেয়া হয়। এতে ওই শিক্ষার্থীর শরীরে নোবেল করোনাভাইরাসে কোন আলামত পাওয়া যায়নি।

পুরোনো সংবাদ

স্বাস্থ্য-চিকিৎসা 440991688289236192

অনুসরণ করুন

মুজিব বর্ষ

Logo

সর্বশেষ সংবাদ

শিল্প-সাহিত্য

ফেসবুক লাইকপেজ

তারিখ অনুযায়ী খুঁজুন

অবলোকন চ্যানেল

item