উমাপুর প্রাথমিক বিদ্যালয়ে এখনও অবকাঠামো গড়ে উঠেনি ।

হাজী মারুফ:


দেখলে মনে হবে এটি পরিত্যাক্ত বাড়ি? আসলে এটা বাসা নয় এটি একাট প্রাইমারী স্কুল
রংপুর সদর উপজেলার চন্দনপাট ইউনিয়নে ১৯৯৭ সালে মজমুল হোসেনের পিতা সাবেক ৮নং ওয়ার্ডে সাবেক ইউপি সদস্য ফজলার রহমান ৩৩ শকত জমি দান করে স্বুলের নামে ।
গড়ে মজমুল হক এলাকাবাসী সহ গড়ে তোলেন উমাপুর প্রাথমিক বিদ্যালয় । ৪ শিক্ষক দিয়ে পাঠদান দেওয়া হয় ঐ স্কুলের শিক্ষার্থীদের । মজমুল হক বিভিন্ন দপ্তরে ধর্ণা দিয়ে ২০১৩ সালের জুলাই মাসে উমাপুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় সরকারী করণ হয়, কিন্তু দ্বিতীয় ধাপে সরকারী করণ হওয়ায় এখন পযর্ন্ত শিক্ষকরা বেতন পা্েচ্ছননা । সরজমিনে গেলে দেখা যায় করুন দশ্য টিনের ঘরে ২০০ শিক্ষাথীদের পাঠদান করছে । শিক্ষ্ান মান যথেষ্ট ভাল । প্রধান শিক্ষক মজমুল হোসেন এ প্রতিবেদককে জানান রংপুর সদর উপজেলা চেয়ারম্যান নাসিমা জামান ববি, সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান মাসুদ নবী মুন্না, তারাও সংস্কারের জন্য টিআর  সাহায্য করেছিলেন । কিন্ত স্কুল একাডেমী ভবন নির্মাণে সরকারের সহযোগীতা জরুরী । বিভিন্ন শিক্ষা দপ্তরে আমরা আবেদন করেছি । অপর দিকে সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার জিয়াউর রহমান অবগত আছেন, স্কুলে অনেক কষ্টে চন্দপাট ইউনিয়ন পরিষদের ননওয়েজ কাজের মাধ্যমে ১টি টয়লেট ১ প্রসাব খানার ব্যবস্থা করা হয় ২০১৫-২০১৬ অর্থ বছরে । এদিকে স্কুলের সভাপতি জানান অনেক আশা নিয়া স্কুলের জায়গা দান করছি ব্যাহে । কিন্তু ২০১৩ সালের জুলাই মাসে সরকারী হওয়ায় পরও এখন অবকাঠামো গড়ে উঠেনি ব্যাহে? হামারেত রংপুরের পুএবধু বঙ্গবন্ধুর কণ্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার হ্যামার রংপুর সহ সারাদেশে শিক্ষা সহ বিভিন্নখ্যাতে ব্যাপক উন্নয়ন করছে । তিনি রংপুরের শিক্ষা দপ্তর সহ সরকারের কাছে অনুরোধ জানিয়েছে বেচেঁ থাকতে বিদ্যালয়টি পাকাকরণ দেখে যেতে চান. অপর দিকে বেতন-ভাতা নাপেয়ে  প্রধান  শিক্ষক সহ ৪ শিক্ষকরা মানবেতার জীবন কাটাচ্ছেন । তবুও থেমে নেই তাদের জীবন যুদ্ব ।

পুরোনো সংবাদ

শিক্ষা-শিক্ষাঙ্গন 42219156181978258

অনুসরণ করুন

সর্বশেষ সংবাদ

কৃষিকথা

ফেসবুক লাইকপেজ

আপনি যা খুঁজছেন

গুগলে খুঁজুন

আর্কাইভ থেকে খুঁজুন

ক্যাটাগরি অনুযায়ী খুঁজুন

অবলোকন চ্যানেল

item